খোলা চিঠিতে যে সাহায্য চাইলেন সুপার মডেল জিজি, DEMO

Share on facebook
Share on twitter
Share on linkedin

অনেকেরই ছোটবেলার একটা কমন আফসোস যে মা–বাবার বিয়ে খেতে পারেনি। বিশেষ করে মা-বাবার বিয়ের অ্যালবাম ওল্টাতে ওল্টাতে সেখানে কোথাও নিজেকে দেখতে না পেয়ে শৈশবে মুখ ভার করেছে অনেকেই। ধারণা করা হচ্ছে, জিজি আর জায়ানকন্যা খাই তাঁর মা-বাবার ‘বিয়ে খেতে’ পারবে। মা-বাবার বিয়ের ছবিতে উপস্থিত থাকবে সেও। কিন্তু সমস্যা অন্যখানে।

তারকা হওয়ার সবচেয়ে সহজ উপায় হলো তারকার সন্তান হওয়া। কিছু না করেই তারকা তারা। যাঁরা কাজ দিয়ে তারকা হন, তাঁরা তত দিনে কীভাবে তারকাখ্যাতি, খ্যাতির বিড়ম্বনা সামলাবেন, তা শিখে যান। মাঝখান থেকে তাঁদের সন্তানেরা বঞ্চিত হয় একটা স্বাভাবিক জীবন থেকে। ছোটবেলা থেকেই বাস্তবতা থেকে শত হাত দূরে থেকে তাদের সঠিক বিকাশ হয়ে ওঠে চ্যালেঞ্জিং।

মার্কিন সুপার মডেল জিজি হাদিদ আর ব্রিটিশ সংগীত তারকা জায়ান মালিক চেয়েছিলেন তাঁদের সন্তানকে একটা স্বাভাবিক শৈশব দিতে। যাতে কোনো ছবি গণমাধ্যমে না আসে। সে যেন কারণ ছাড়াই তারকা না হয়ে ওঠে। আর কেউ তাঁদের মেয়েকে না চেনে। এমন অবস্থায় বোর্ডিং স্কুলে ভর্তি করা গেলে সে মোটামুটি একটা স্বাভাবিক শৈশব পাবে। কেননা, কেউ তাকে চিনবে না। কিন্তু সেই আশার গুড়ে বালি। অবস্থা বেগতিক দেখে এক খোলা চিঠিতে সাহায্য চেয়েছেন ২৬ বছর বয়সী জিজি।

Share on facebook
Share on twitter
Share on linkedin

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *

Prothom Kantha
Prothom Kantha

সম্পর্কিত খবর